গর্ভকালের অবসরে কি করলে ভালো থাকবে আপনার সন্তান?

Print

https://i0.wp.com/thepeoplesnews24.com/wp-content/uploads/2016/05/91fc5e58f2ecddbc76593cfcc69895da-26-660x330.jpg?resize=654%2C327

নারীর জীবনের চূড়ান্ত সুখের সময় হলো আসন্ন মাতৃত্ব। এই সময় প্রত্যেক হবু মা তার সন্তানকে নিজের শরীরের ভিতরে অনুভব করতে পারেন তার নিজের সন্তানকে। তবে শুধুমাত্র যে এই সময় আনন্দই থাকে এই সময় মাকে ঘিরে তা নয়, এই সময় হবু মায়ের বড়ো দায়িত্বও থাকে তার সন্তানকে ঘিরে। সামান্য কিছুও এই সময় মাকে অস্থির করে তোলে। কিন্তু এই সময় মায়ের উদ্বিগ্ন হওয়া সন্তান ও মা উভয়ের স্বাস্থের পক্ষেই ক্ষতিকর। তাই যতটা সম্ভব এই সময় দুশ্চিন্তামুক্ত ও হাসিখুশি থাকতে বলেন চিকিতসকরা। সাধারণত এই সময় সেরকম একটা কাজ থাকে না মহিলাদের। অল্প বিস্তর বিশ্রামের মধ্যে দিয়েই কেটে যায় মায়েদের সময়। আর এই অবসরেই নানা ধরনের দুশ্চিন্তা ঘিরে ধরে মাকে যা শিশুর স্বাস্থের পক্ষে হানিকারক৷ তাই এই সময়গুলোতে ঠিক কী করলে ভালো সময় কাটবে মায়ের? কী করলে সন্তান ও মা উভয়ই থাকবেন সুস্থ? জেনে নিন এই সময়ের অবসর কাটানোর কিছু উপায়।

হাতের কাছে বই রাখুন:
গর্ভকালীন সময় বেশ অনেকটা। আর এই সময় সহজে কাটতে চায় না। তাই এই সময়ের জন্য ভালো কিছু বই কিনে রাখুন। যখনই আপনার মনে চিন্তারা ভিড় করবে তখনই ভালো বই হয়ে যেতে পারে আপনার সঙ্গী। তাহলে খুব সহজেই কেটে যাবে আপনার গর্ভকালীন অবসর। একই সঙ্গে মন ভালো থাকবে এবং সন্তানের উপরেও সুপ্রভাব পড়বে। এই সময় বই পড়া আপনার শিশুর মস্তিষ্কের বিকাশের জন্যেও ভালো।
https://i1.wp.com/s3.amazonaws.com/somewherein/pictures/kobid/05-2014/kobid_557493993538551bda70141.86110306_xlarge.jpg?resize=396%2C264
ইন্টারনেটে শিশুর বৃদ্ধি বিষয়ক ওয়েবসাইট ঘাটুন:
গর্ভের সন্তান কিভাবে বেড়ে উঠছে, এ সময়ে কী কী করা উচিৎ, সন্তানের জন্মের পর কীভাবে যত্ন নিতে হবে ইত্যাদি নানা বিষয় নিয়ে ইন্টারনেটে অসংখ্য সাইট আছে। আপনার গর্ভকালীন যত্ন এবং আপনার শিশুর যত্ন নেওয়ার জন্য এসব সাইটগুলো ঘেঁটেই কাটাতে পারেন খানিকক্ষণ। তবে মনে রাখবেন গর্ভকালীন সময়ে আপনার গ্যাজেটের সামনে একটানা বেশিক্ষণ থাকা উচিৎ নয়।

রোমান্টিক ও কমেডি সিনেমা দেখুন:
গর্ভকালে হাসিখুশি থাকাই শ্রেয়। তাই মন ভালো রাখতে ও সময় কাটাতে এসময় আপনার বন্ধু হতে পারে কমেডি ও রোমান্টিক সিনেমা। এই সময়ে অ্যাকশন, থ্রিলার কিংবা ভৌতিক সিনেমা দেখা উচিৎ নয়। এসব সিনেমা মানসিক চাপ বৃদ্ধি করে যা গর্ভের সন্তানের জন্য ক্ষতিকর। তাই এই সময়গুলিতে হাসির সিনেমা দেখুন ও মনকে খুশি রাখুন।

বিকেলে বাইরে হাঁটতে যান:
গর্ভকালে প্রয়োজন কিছু ব্যায়ামের। সেই সঙ্গে সারাদিন বাড়িতে বসে থেকে ভালো না লাগলে বিকেলের দিকে বাইরে বেরোতে পারেন। বাইরের খোলা হাওয়ায় আপনার স্বাস্থ ও মন দুই ভালো থাকবে। গর্ভকালীন অবসরে বিকেল বেলা কাটিয়ে দিতে পারেন বাইরে কিছুক্ষন হাঁটাহাঁটি করে। এতে গর্ভের সন্তানও ভালো থাকবে।

যোগাসন করুন:
গর্ভকালে মানসিক অস্থিরতা দূর করার জন্য এবং শরীর সুস্থ রাখার জন্য যোগাসন করতে পারেন। এই সময়ে সুবিধাজনক আসনের কিছু যোগাসন আপনাকে দিতে পারে মানসিক প্রশান্তি। সেই সঙ্গে কেটে যাবে একঘেয়ে সময়গুলো।

শখের কাজ করুন:
আপনার নিশ্চয়ই কিছু শখের কাজ রয়েছে যা আপনি অবসরে করতে ভালো বাসেন? সেগুলোকেই আপনার অবসরের সঙ্গী করে নিন। অনেকে লিখতে ভালো বাসেন। তারা নিজেদের এই বিশেষ সময়ের অনুভূতির কথা লিখে রাখতে প্রাতিদিন। কেউ আবার ভালোবাসেন রান্না করতে। ব্যঞ্জনের বই তাদের অবসর কাটাতে পারে। আবার কেউ ভালোবাসেন হাতের কাজ। এই সময় আপনার সন্তানের জন্য আগাম কিছু উপহার বানিয়ে রাখতে পারেন আপনি। এই সবে আনন্দও যেমন পাবেন তেমনই সময়ও কেটে যাবে অনেকটা। তবে শরীরের উপরে ধকল নিয়ে কিছু করা এই সময় উচিৎ নয়। যতক্ষণ শরীরে কষ্ট না হয় ততক্ষণই এই সব কাজ করতে পারেন।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 102 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ