জহির খানকে নিয়ে ভারতীয় বোর্ডে চলছে নাটক!

Print

ভারতীয় ক্রিকেট দলের নতুন প্রধান কোচ নিয়োগ নিয়ে কম নাটক হয়নি। শেষ পর্যন্ত অনিল কুম্বলের রেখে যাওয়া জুতায় পা গলিয়েছেন রবি শাস্ত্রী। তারসঙ্গে ভারতীয় দলের বোলিং কোচ হিসেবে সাবেক পেসার জহির খানের নাম ঘোষণা করা হয়। আর বিদেশের মাটির সিরিজের জন্য ব্যাটিং পরামর্শক হিসেবে রাখা হয় রাহুল দ্রাবিড়কে। শচীন টেন্ডুলকার, সৌরভ গাঙ্গুলি ও ভিভিএস লক্ষণকে নিয়ে গড়া ভারতীয় ক্রিকেট বোর্ডের অ্যাডভাইসরি কমিটির সুপারিশে এমন দায়িত্ব দিয়েই এই তিনজনের নাম ঘোষণা করা হয়।
কিন্তু এবার দেখা দিয়েছে নতুন ঝামেলা। জহির খানকে নাকি রবি শাস্ত্রী বোলিং কোচ হিসেবে চাইছেন না। এই দায়িত্বে তিনি চান ভরত আরুণকে। ২০১৪ থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত শাস্ত্রী যখন ভারতীয় দলের ডিরেক্টর ছিলেন তখন এই ভরত ছিলেন দলের বোলিং কোচ। আবার তাকে ফেরাতে চাইছেন রবি শাস্ত্রী। কিন্তু অ্যাডভাইসরি কমিটির সদস্য সৌরভ গাঙ্গুলি চান জহির খানকে। বিষয়টি নিয়ে সৌরভ ও শাস্ত্রীর মধ্যকার দ্বন্দ্ব সামনে নিয়ে এসেছে ভারতীয় মিডিয়া। এক্ষেত্রে দেশটির ক্রিকেট বোর্ড মাঝখান থেকে ‘ধরি মাছ না ছুঁই পানি’ ভূমিকা পালন করছে।

সৌরভ এবং শাস্ত্রী কারো মন ভাঙতে চাইছে না। তাহলে এখন কী হবে! ভারতের বোলিং কোচ কে হবেন? এমন প্রশ্নের জবাবে শাস্ত্রী সমর্থকরা বলছেন, বোলিং কোচ ভরত অরুণ হোক। আর জহির খান থাকুক পরামর্শক হিসেবে।
বিষয়টি নিয়ে এখনো চূড়ান্ত কোনো সিদ্ধান্ত আসেনি। তবে এরই মধ্যে সৌরভ গাঙ্গুলি জানালেন আরেক কথা। জহির খানকে নাকি মাত্র ১৫০ দিনের জন্য নিয়োগ দেয়া হয়েছে। তিনি বলেন, ‘জহির বছরে ১৫০ দিন সময় দিতে পারবে। তাই তাকে এই কয়দিনের জন্য নিয়োগ দেয়া হয়েছে। তার চুক্তিটাও এভাবে করা হয়েছে।’ কিন্তু তার এই চুক্তি কোচ নাকি পরামর্শক হিসেবে তা নিয়ে কোনো কথা বলেননি গাঙ্গুলি।
এর আগে গত বছর একবার ভারতীয় দলের বোলিং পরামর্শক হিসেবে জহির খানের নাম সামনে আসে। তখন তিনি বিসিসিআই-এর কাছে বছরে ৪ কোটি রুপি দাবি করেন। অংকটা বেশি মনে হওয়ায় বোর্ড তখন তাকে নিয়োগ দেয়নি। জহির এবার কোন দায়িত্ব পাচ্ছেন তা এখনো নিশ্চিত নয়। তবে এ বিষয়ে এখনো মুখ খোলেননি তিনি। ২০০০ থেকে ২০১৪ সাল পর্যন্ত ভারতের হয়ে ৯২ টেস্ট, ২০০ ওয়ানডে ও ১৭ টি-টোয়েন্টি খেলেছেন জহির খান। উইকেট নিয়েছেন যথাক্রমে ৩১১, ২৮২ ও ১৭। জহির খানকে অনেকে ভারতীয় ফাস্ট বোলিংয়ে সবচেয়ে সেরা বলেন।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 84 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ