ঝিনাইদহে তিনদিন ব্যাপী শুরু পাগলাকানাইয়ের জন্ম জয়ন্তী উৎসব !

Print


স্টাফ রিপোর্টার,ঝিনাইদহঃ
ঝিনাইদহের মরমী লোক কবি পাগলা কানাইয়ের ২০৭ তম জন্ম জয়ন্তী বৃহস্পতিবার শুরু হয়েছে। এ উপলক্ষ্যে বেড়বাড়ি গ্রামে পাগলা কানাই স্মৃতি সংরক্ষন পরিষদ তিনদিন ব্যাপী বর্নাঢ্য অনুষ্ঠানের আয়োজন করেছে। সকাল ১০টায় কবির নিজ গ্রাম বেড়বাড়িতে প্রধান অতিথি হিসেবে জন্ম উৎসবের উদ্বোধন করেন জেলা প্রশাসক মাহবুব আলম তালুকদার।

এ সময় স্থানীয় সরকার বিভাগের উপপরিচালক আবু ইউসুফ মো রেজাউর রহমান, ঝিনাইদহ জেলা পরিষদের সচিব মোহাম্মদ রেজাই রাফিন সরকার, গবেষক এড. মীর সাখাওয়াত হোসেন, আক্কাস আলী, খুলনা বিভাগীয় গ্রুপ থিয়েটার ফেডারেশনের সাংগঠনিক সম্পাদক নাজিম উদ্দিন জুলিয়াস, পাগলা কানাই ইউনিয়নের চেয়ারম্যান ও স্মৃতি সংরক্ষণ সংসদ এর সহ-সভাপতি নজরুল ইসলাম, যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ইব্রাহিম জামান উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানের সভাপতিত্ব করেন পাগলাকানাই স্মৃতি সংরক্ষণ সংসদের সাধারণ সম্পাদক এ্যাডভোকেট আব্দুর রশিদ। অনুষ্ঠানমালার মধ্যে ছিল কবির মাজারে পুষ্পমাল্য অর্পন, মিলাদ মাহফিল, লাঠি খেলা, চিত্রাংকন প্রতিযোগিতা ও কবি রচিত সঙ্গীতানুষ্ঠান। ১১ মার্চ এই অনুষ্ঠান শেষ হবে। উল্লেখ্য, লোক-সাধনা ও মরমী সঙ্গীতের এ কবি ঝিনাইদহ সদর উপজেলার বেড়বাড়ি গ্রামে বাংলা ১২১৬ সালের ২৫ ফাল্গুন জন্মগ্রহণ করেন।

বাংলা ১২৯৬ সালের ২৮ আষাঢ় তিনি ইন্তেকাল করেন। ইতিহাস থেকে জানা গেছে, ছোটবেলা থেকেই তিনি দূরন্ত ও আধ্যাত্মিক স্বভাবের ছিলেন। বাল্যকালে পিতৃহারা পাগলা কানাই-এর ঘরে মন না টেকায় অর্থের অভাবে পড়ালেখা হয়নি। তিনি মানুষের বাড়ি রাখালের কাজ করেছেন। গরু চরাতে গিয়ে ধুয়ো জারি গান গাইতেন। নিরক্ষর হলেও তার স্মৃতি, মেধা ছিল প্রখর। তার সঙ্গীতে ইসলাম ধর্মের তত্বকে প্রচার করেছেন নানা উপমার প্রয়োগ ঘটিয়েছেন।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 142 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ