নতুন বছরে ডিজিটাল বই পাচ্ছে শিক্ষার্থীরা

Print

নবম ও দশম শ্রেণির জন্য দেশে প্রথমবারের মত উন্নয়নকৃত ই-লার্নিং ও ই-ম্যানুয়েল কনটেন্ট সোমবার থেকে চালু হচ্ছে। ফলে শিক্ষার্থীরা যেমন অনলাইনে নিজেদের পাঠ নিতে পারবে তেমনি শিক্ষকরাও পাঠদানের জন্য পরিপূর্ণ একটি গাইডলাইন পাবেন ডিজিটাল মাধ্যমে।
টিচিং কোয়ালিটি ইম্প্রুভমেন্ট-২ প্রকল্পের আওতায় এথিকস অ্যাডভান্সড টেকনোলজি লিমিটেড (ইএটিএল) কারিগরি সহযোগিতায় জাতীয় শিক্ষাক্রম ও পাঠ্যপুস্তক বোর্ডের সামগ্রিক নির্দেশনা ও তত্ত্বাবধানে এসব কনটেন্ট তৈরি করা হয়েছে।

সোমবার রাজধানীর সোনারগাঁও হোটেলে শিক্ষামন্ত্রণালযের আয়োজিত এক অনুষ্ঠানে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ প্রধান অতিথি হিসেবে ডিজিটাল বই উদ্বোধনকালে একথা বলেন।
শিক্ষার মান নিয়ে যারা সমালোচনা করেন তাদের উদ্দেশ্যে শিক্ষামন্ত্রী বলেন, শিক্ষার মান বাড়ছে না বলে শিক্ষার্থীদের হতাশ করবেন না। দেশের শিক্ষা ব্যবস্থার অনেক উন্নতি হয়েছে। বিশ্বমানের শিক্ষা ব্যবস্থা যতটা এগিয়ে গেছে, তার থেকে আমরা পিছিয়ে রয়েছি।
মন্ত্রী বলেন, বইযের বোঝা কমাতে ই-পাঠ্যপুস্তক তৈরির কাজ শুরু করেছি। সম্প্রতি মাদরাসা বোর্ডের চারটি বই আধুনিক পাঠ পদ্ধতির মাধ্যমে ই-লার্নিং করা হয়েছে। বর্তমানে মাধ্যমিক পর্যায়ে নবম-দশম শ্রেণির সব বই ই-লার্নিং হচ্ছে। এর মাধ্যমে পাঠ্যবইয়ে জটিল বিষয়গুলো অডিও-ভিডিও দ্বারা ব্যাখ্যা ও সহজ উদাহরণ যোগ করা হয়েছে।
তিনি বলেন, শিক্ষার্থীদের আধুনিক শিক্ষায় শিক্ষিত করতে সারাদেশে ৪০ হাজারের বেশি মাল্টিমিডিয়া ক্লাসরুম চালু করা হয়েছে। ২৫ হাজারের বেশি ডিজিটাল ল্যাব স্থাপন করা হয়েছে। যুগোপযোগী সিলেবাস তৈরি করা হচ্ছে।
নাহিদ বলেন, আমাদের নানা প্রতিবন্ধকতা উপেক্ষা করে আধুনিক প্রশিক্ষণের মাধ্যমে শিক্ষকদের অভিজ্ঞ করে তোলা হচ্ছে। তারা আমাদের শিক্ষার্থীদের সৃজনশীল মেধায় শিক্ষিত করে তুলবেন বলে তিনি আশা ব্যক্ত করেন।
অনুষ্ঠানে আরও বক্তব্য রাখেন মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা বিভাগের সচিব মো. সোহরাব হোসেন, কারিগরি বিভাগের সচিব মো. আলমগীর হোসেন, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা অধিদফতরের মহাপরিচালক অধ্যাপক ওয়াহিদুজ্জামান, এনসিটিবির চেয়ারম্যান নারায়ণ চন্দ্র সাহা, এডিবির সিনিয়র সোশ্যাল সেক্টর অফিসার এস এম এবাদুর রহমান, টিকিউআই-২ প্রকল্পের পরিচালক মো. জহির উদ্দীন বাবর প্রমুখ।
এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন শিক্ষামন্ত্রণালয়ের বিভিন্ন পর্যায়ে কর্মকর্তা, মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের কর্মকর্তাসহ শিক্ষা সংশ্লিষ্ট প্রতিষ্ঠানের কর্মকর্তারা।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 191 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ