নিরাপদে আছি, দোয়া করেন

Print

পাপুয়া নিউগিনির সর্বোচ্চ পর্বত মাউন্ট কার্সটেঞ্জ পিরামিড জয় করতে গিয়ে বৈরী আবহাওয়ার কারণে সেখানে আটকা পড়া মুসা ইব্রাহীম জানিয়েছেন, তিনি নিরাপদে আছেন। আগামীকাল নাগাদ তাকে উদ্ধার করা সম্ভব হতে পারে।
গত ২৯ মে ইন্দোনেশিয়ার বালির উদ্দেশে দেশ ছাড়েন মুসা। নীলসাগর গ্রুপের পৃষ্ঠপোষকতায় মুসা ইব্রাহীম মাউন্ট কার্সটেঞ্জ পিরামিড জয় করতে যান। তবে প্রতিকূল আবহাওয়ার কারণে সহযোগী দুই আরোহীসহ বেজ ক্যাম্পে আটকা পড়ে আছেন চারদিন ধরে। খাবার সংকটে ভুগছে পুরো টিম। তাদের স্যাটেলাইটে বার্তা পাঠানোর ডিভাইসটিরও চার্জও শেষ হয়ে আসছে।

রোববার পক্ষ থেকে মুসার সঙ্গে থাকা সত্যরূপ সিদ্ধান্তের স্যাটেলাইট ডিভাইসে মুসা ইব্রাহীমের সঙ্গে যোগাযোগ করা হয়। জবাবে মুসা লেখেন, ‘আল্লাহর রহমতে এখনও নিরাপদে আছি। আমাদের জন্য দোয়া করেন।’
এর আগে সিদ্ধান্তের ডিভাইস থেকে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলমের উদ্দেশে মুসা লিখেছিলেন, ‘প্রিয় শাহরিয়ার ভাই, আবহাওয়া এখন ভালো, আশা করছি এখন আমাদের উদ্ধার করা সম্ভব হবে। মুসা।’
এরই মধ্যে রোববার বেশ কয়েকটি টুইট করেছেন মুসার সঙ্গে থাকা সত্যরূপ সিদ্ধান্ত। এর একটিতে তিনি জানিয়েছেন, তাদের কেউ আহত হননি।
একই সঙ্গে তাদের উদ্ধারে একটি হেলিকপ্টার গেলেও সেটিকে ফিরে আসতে হয়েছে বলেও এক টুইটে জানিয়েছেন তিনি।
ইব্রাহীম মুসার ল্যাপটপটি চার্জ দেয়া সম্ভব হয়েছে বলেও জানিয়েছেন তিনি।
এক টুইটে সত্যরূপ জানিয়েছেন, গ্লোবাল রেসকিউ তাদের উদ্ধারে এগোতে চাইলেও সংগঠনটির নীতিমালা অনুযায়ী, তারা কেবল আহতদেরই উদ্ধার করবে।
শনিবার রাতে প্রেস ইনস্টিটিউট অব বাংলাদেশে কর্মরত মোহাম্মদ আব্দুল মান্নান ফেসবুকে একটি পোস্ট দিলে ওশেনিয়ার সর্বোচ্চ পর্বতে মুসার আটকে থাকার বিষয়টি জানা যায়।
অভিযানে মুসার সঙ্গে রয়েছেন ভারতের এভারেস্টজয়ী পর্বতারোহী সত্যরূপ সিদ্ধান্ত ও নন্দিতা চন্দ্রশেখর। মোট তিনজনের পর্বতারোহী দলের নেতা মুসা ইব্রাহীম।
শনিবার রাতে এক ফেসবুক পোস্টে পররাষ্ট্র প্রতিমন্ত্রী শাহরিয়ার আলম লেখেন, ‘আমাদের অ্যাম্বাসি একটু আগে জানিয়েছে তিমিকাতে হেলিকপ্টার প্রস্তুত আছে, আবহাওয়া ভালো হলেই তারা তাদের আনতে যাবে, আশা করি আজ সকালেই।’
তবে শেষ পর্যন্ত আজ সকালে মুসাকে উদ্ধার করা সম্ভব হয়নি।
যে অভিযানে আটকে আছেন মুসা
ইন্দোনেশিয়ার নাবিরে থেকে পাঁচ থেকে ছয়দিন ট্রেকিং শেষে অভিযাত্রীরা ১৬ হাজার ২৩ ফুট উঁচু মাউন্ট কার্সটেঞ্জ পিরামিড চূড়া জয় করার কথা রয়েছে। গত ৬ জুন ফেসবুকে এক পোস্টের মাধ্যমে নিজের প্রস্তুতির কথা জানিয়েছিলেন মুসা।
মুসার অ্যাডভেঞ্চার জীবন
মুসা ইব্রাহীম ২০১০ সালের ২৩ মে বিশ্বের সর্বোচ্চ পর্বত (২৯ হাজার ৩৫ ফুট) মাউন্ট এভারেস্ট, ২০১১ সালের ১২ সেপ্টেম্বর আফ্রিকার সর্বোচ্চ পর্বত (১৯ হাজার ৩৪১ ফুট) মাউন্ট কিলিমানজারো, ২০১৩ সালের ২৬ জুন ইউরোপের সর্বোচ্চ (১৮ হাজার ৫১০ ফুট) পর্বত মাউন্ট এলব্রুস, ২০১৪ সালের ২৩ জুন উত্তর আমেরিকার সর্বোচ্চ (২০ হাজার ৩২০ ফুট) পর্বত মাউন্ট ডেনালি জয় করেন। তবে ২০১২ সালের ফেব্রয়ারিতে দক্ষিণ আমেরিকার সর্বোচ্চ (২২ হাজার ৮৪১ ফুট) পর্বত মাউন্ট অ্যাকঙ্কাগুয়া অভিযানে আবহাওয়া খারাপ থাকায় ২১ হাজার ফুট উচ্চতা থেকে ফিরতে বাধ্য হয়েছিলেন তিনি।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 186 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ