বরগুনায় দরপত্র নিয়ে হামলার ঘটনায় পৃথক  পৃথক মানববন্ধন

Print

মুতাসিম বিল্লাহ,বরগুনা প্রতিনিধি:

: বরগুনার বেতাগীতে উপজেলা চেয়ারম্যান, মেয়র ও তিন ইউনিয়ন চেয়ারম্যানসহ আওয়ামীলীগ নেতাদের বিরুদ্ধে মামলা দেওয়ার প্রতিবাদে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।

বৃহষ্পতিবার (৯ ফেব্রুয়ারি) দুপুর ১২ টার দিকে বেতাগী উপজেলা পরিষদ চত্বরে বেতাগী উপজেলাবাসী এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন। এসময় বক্তব্য রাখেন, উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান শাহজাহান কবির, পৌর মেয়র গোলাম কবিরসহ স্থানীয় বিভিন্ন দল ও সংগঠনের নেতৃবৃন্ধ।

বরগুনার বেতাগী উপজেলায় ত্রাণ ও পুনর্বাসন অধিদপ্তরের ৪ কোটি টাকার ১৮টি প্রকল্পের দরপত্রের লটারির সময় টেন্ডার প্রক্রিয়া অংশগ্রহন করতে বাঁধা দেওয়া ও হামলা করে এক ঠিকাদার ও যুবলীগ নেতাকে আহত করায় হামলাকারীদের বিচারের দাবীতে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করা হয়েছে।

বেলা ১১ টায় বরগুনা প্রেসক্লাব চত্বরে জেলা ঠিকাদার সমিতি এ মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেন। এসময় বক্তব্য রাখেন জেলা ঠিকাদার মালিক সমিরি সভাপতি ও জেলা আওয়ামীলীগ নেতা মো. হুমায়ন কবির, বরগুনা সদর উপজেলা আওয়ামীলীগের সভাপতি সিদ্দিকুর রহমান সহ আওয়ামীলীগ ও অঙ্গ সংগঠনের নেতৃবৃন্ধ।

উল্লেখ্য, বরগুনার বেতাগী উপজেলায় ত্রাণ ও পুনর্বাসন অধিদপ্তরের ৪ কোটি টাকার ১৮টি প্রকল্পের দরপত্রের লটারির সময় হামলায় বরগুনা সদর উপজেলা যুবলীগের যুগ্ম আহ্বায়ক জাহিদুলের মাথা ফেটে যায় এবং অপর এক ঠিকাদার আহত হন।

মঙ্গলবার (৭ ফেব্রুয়ারি) বিকেলে উপজেলা প্রকল্প বাস্তবায়ন কর্মকর্তার (পিআইও) কার্যালয়ে এ হামলার ঘটনার পর লটারি ভন্ডুল হয়ে যায়। পরে বুধবার (৮ফেব্রুয়ারি) এঘটনায় যুবনেতা জাহিদুল ইসলামের বাবা জহিরুল ইসলাম বাদী হয়ে বরগুনার দ্রুত বিচার ট্রাইবুন্যালে উপজেলা চেয়ারম্যান, মেয়র ও তিন ইউনিয়ন চেয়ারম্যানসহ অজ্ঞাতনামা ৩০-৪০জনকে আসামী করে একটি মামলা দায়ের করেন। আদালতের বিচারক মামলাটিকে আমলে নিয়ে গোয়েন্দা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তাকে তদন্তের নির্দেশ দেন।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 88 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ