বাপ্পির কাছে ক্ষমা চাইলেন মাহি

Print

ঢাকাই চলচ্চিত্রের আলোচিত জুটি বাপ্পি চৌধুরী ও মাহিয়া মাহি। ২০১২ সালে ‘ভালোবাসার রং’শিরোনামের সিনেমার মাধ্যমে চলচ্চিত্রের পর্দায় হাজির হন এ জুটি। এরপর তারা একসঙ্গে ‘দবির সাহেবের সংসার’, ‘হানিমুন’, ‘অনেক সাধের ময়না’সহ বেশ কিছু সিনেমায় জুটি বেঁধে অভিনয় করেছেন।
সম্প্রতি বাপ্পির কাছে হাত জোড় করে ক্ষমা চেয়েছেন মাহিয়া মাহি। কিন্তু হঠাৎ করে মাহি কেন বাপ্পির কাছে ক্ষমা চাইলেন? এমন প্রশ্নের উত্তর জানতে দেখতে হবে ‘প্রেমের বাঁধন’ সিনেমাটি। কারণ এটি বাস্তবের কোনো ঘটনা নয়। গাজী জাহাঙ্গীর পরিচালিত ‘প্রেমের বাঁধন’সিনেমার দৃশ্যে এমনটা দেখা যাবে।

সম্প্রতি রাজধানীর পিয়াংকা শুটিং স্পটে এমন দৃশ্যে অংশ নেন বাপ্পি-মাহি। এ প্রসঙ্গে বাপ্পি রাইজিংবিডিকে বলেন, ‘গত ২৭ ডিসেম্বর এ সিনেমাটির শুটিং করা হয়। সিনেমার গল্পে মাহির সঙ্গে আমার দীর্ঘদিনের প্রেম থাকে। এজন্য মাহিকে আমি বাড়ি-গাড়ি কিনে দেই। এক পর্যায়ে আমি তাকে আমার কাছে নিয়ে আসি। তখন মাহি আমাকে জানায় সে অন্য একজনকে ভালোবাসে। এজন্য আমার কাছে ক্ষমা চেয়ে চলে যায়। এভাবেই গল্প এগিয়ে যায়।’
গত ২১ ডিসেম্বর থেকে এ সিনেমার প্রথম লটের শুটিং শুরু করা হয়। বাপ্পি ও মাহি ছাড়া এ সিনেমায় আরো অভিনয় করছেন তানিন সুবাহ, মিশা সওদাগর, আলী রাজ, কাজী হায়াৎ, আদিত্ত আলম, কাবিলা, ডি. জে. সোহেল, ও শিশুশিল্পী আবসিসহ অনেকে।
চিত্রবানীর ব্যানারে নির্মিত এ সিনেমাটির কাহিনি, সংলাপ, চিত্রনাট্য ও পরিচালনা করেছেন পরিচালক গাজী জাহাঙ্গীর। পারিবারিক ও সামাজিক প্রেক্ষাপটের ওপর ভিত্তি করে সুষ্ঠু সৃজনশীল রোমান্টিক গল্পের সিনেমা ‘প্রেমের বাঁধন’। এর সংগীতায়োজনে আছেন আহমেদ ইমতিয়াজ বুলবুল, এস আই টুটুল, ইমরান। গানে কণ্ঠ দিয়েছেন- ন্যান্সি, এস আই টুটুল, ইমরান, হৃদয় খান, কনা, পড়শী প্রমুখ।
গত ১১ নভেম্বর বাংলাদেশ চলচ্চিত্র উন্নয়ন করপোরেশনের (বিএফডিসি) ২ নম্বর ফ্লোরে এ সিনেমার মহরত অনুষ্ঠিত হয়।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 178 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ