বিশ্ববিদ্যালয়ে সিনিয়র-জুনিয়র প্রেম : ছেলে বনাম মেয়ে

Print

love-live-new

প্রেম মানে না কোন বাধা। সিনিয়র-জুনিয়র কোন কিছু তোয়াক্কা করে না। তবে ধরনটা একেক রকম হয়। চলুন জেনে নেই বিশ্ববিদ্যালয় লাইফে সিনিয়র-জুনিয়র প্রেমের ক্ষেত্রে ছেলে এবং মেয়েরা কী ভাবেন।

>>> মেয়েদের ক্ষেত্রে :

১. সিনিয়রের সাথে প্রেম :

প্রেম মানে লাইফ বিন্দাস। বিয়ে থেকে শুরু করে মৃত্যু পর্যন্ত একসাথে সবই সম্ভব। কারণ মেয়েটার পড়াশুনা শেষ করার আগেই ছেলে স্টাব্লিশ। চাকরি আছে মানেই মা-বাবার পাথর মন এক নিমিষেইই গলে যাবে।বরফ যেমন গলে পানি হয় আর কি।

২. ক্লাসমেটের সাথে :

প্রেম মানে ৯০% অসম্ভব। দুজন একইসাথে পড়াশুনা করবে। পড়াশুনা শেষ করতে করতে মেয়েটার বয়স বাড়বে বিয়ে হয়ে যাবে। তারপরও ছেলে বাবাজি কিছু করতে পারবে না। চাকরি নাই মা-বাবা ভিলেনের মত দিতে নারাজ থাকবে। প্রেমের সমাপ্তি সেখানেই। ছেলে পড়াশোনা শেষ করতে করতে মেয়ে এক বাচ্চার মা।

৩. জুনিয়রের সাথে :

বেকুবরাই প্রেম করে জুনিয়রের সাথে টাইম পাস করার জন্য।

>>> ছেলেদের ক্ষেত্রে :

১. সিনিয়রের সাথে :

প্রেম মানে সব সুযোগ সুবিধা আদায়। অকূল সাগরে ভাসে তাদের প্রেম। যে প্রেমের কোন গন্তব্য নেই। মাইয়াটা বুড়া হয় ছেলেটা কচি মাইয়া পাইলে ফুড়ুৎ করি উড়াল দেই।

২. ক্লাসমেটের সাথে :

প্রেম মানে নোটের আদান-প্রদান। ক্লাসে টাইম পাস। কাছাকাছি থাকলে রান্না করে নিয়ে আসা খাওয়ানো সব সময়। পড়াশোনা শেষ তুমি তোমার রাস্তায় আমি আমার রাস্তায়। প্রেম করবে নিজের পছন্দে আর বিয়ে করবে বাবা-মার পছন্দে ।

৩. জুনিয়রের সাথে :

প্রেম মানে লাইফ ইজ বিউটিফুল।মাইয়ার বিয়ের বয়স হওয়ার আগে পোলা স্টাব্লিশ। সবকিছু ঠিকঠাক। প্রেম থাকলে বিয়ে কনফার্ম।

 

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 828 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ