মালয়েশিয়ায় বন্যা, সরিয়ে নেয়া হয়েছে হাজার হাজার মানুষকে

Print

মালয়েশিয়ার পূর্ব উপকূলীয় রাজ্যগুলোতে চার দিনের প্রবল বৃষ্টিপাতে সৃষ্ট বন্যায় হাজার হাজার গ্রামবাসী আটকা পড়েছে। তাদেরকে উদ্ধারে মঙ্গলবার বেশ কয়েকটি নৌকা ও ট্রাক কাজে লাগানো হচ্ছে।
তেরেংগানু ও কেলানটান রাজ্যে বন্যার কারণে কর্তৃপক্ষ বিভিন্ন স্কুল ও রাস্তাঘাট বন্ধ করে দিয়েছে। ফলে অনেক গ্রাম বিচ্ছিন্ন হয়ে পড়েছে।

তেরেংগানুর বেসামরিক প্রতিরক্ষা বাহিনী প্রধান চে আদম আব্দুল রহমান বলেন, অনুসন্ধান ও উদ্ধার অভিযান চালানোর জন্য ৭শ’ কর্মকর্তাকে নিয়োগ করা হয়েছে।
তিনি বলেন, অনেক গ্রামীণ সড়ক চলাচলের অনুপযোগী হয়ে পড়েছে। আটকে পড়া গ্রামবাসীদের উদ্ধার করে আশ্রয় কেন্দ্রে পাঠাতে বেশ কয়েকটি নৌকা ও ট্রাক কাজে লাগানো হচ্ছে। তিনি সতর্কবাণী করেন, অব্যাহত বৃষ্টির কারণে বন্যা পরিস্থিতির অবনতি হলে আরো লোকজনকে সরিয়ে নেয়ার প্রয়োজন হতে পারে।
পার্শ্ববর্তী কেলানটানে বন্যার কারণে কমপক্ষে ৪ হাজার ৯০৬ জনকে সরিয়ে নেয়া হয়েছে।
কেলানটান রাজ্যের বেসামরিক প্রতিরক্ষা বাহিনী প্রধান জয়নুদ্দিন হুসিন বলেন, ৩০টি নৌকা ও ২৩ টি যানবাহন নিয়ে প্রায় ১৩ শ’ কর্মী উদ্ধার তৎপরতা চালাচ্ছেন।
তিনি বলেন, প্রবল বৃষ্টিপাত হচ্ছে এবং গোলক নদীর পানি বিপদসীমা অতিক্রম করেছে। রাজ্যের বিভিন্ন স্কুল ও অনেক গ্রামীণ সড়ক বন্ধ করে দেয়া হয়েছে।
গোলক নগরী পানি উপচে কেলানটন রাজ্যের রানতাও পানজাং শহরে বন্যার সৃষ্টি হয়েছে। এ নদী মালয়েশিয়া ও থাইল্যান্ডের সীমান্ত এলাকা দিয়ে প্রবাহিত হচ্ছে।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 96 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ