রাজনীতি আমাদের মাঝে দেয়াল উঠিয়ে দিয়েছে

Print

বলিউডের কিংবদন্তি অভিনেত্রী শর্মিলা ঠাকুর বলেছেন, ‘রাজনীতি ও দেশভাগ আমাদের মাঝে দেয়াল উঠিয়ে দিয়েছে, কিন্তু মানসিকভাবে এক। আশা করি, দুই দেশের মাঝখানের এই কাঁটাতারের বেড়া আমাদের আলাদা করতে পারবে না।’
শনিবার রাত ৮টায় রাজধানীর বসুন্ধরা কনভেনশন সেন্টারে আয়োজিত একটি কনসার্টে অংশ নিয়ে এ কথা বলেন শর্মিলা ঠাকুর।

কনসার্টে দর্শকদের উদ্দেশে ষাটের দশকের এই সাড়াজাগানো অভিনেত্রী বলেন, ‘বাংলাদেশকে আমার নিজের দেশের মতো মনে হয়। এর আগেও বহুবার এ দেশে এসেছি। আমার বারবারই বাংলাদেশে আসতে ইচ্ছে করে।’
নন্দিত এই অভিনেত্রী আরো বলেন, ‘ভারত ও বাংলাদেশের মানুষের কৃষ্টি- সংস্কৃতি ও জীবনযাপন সবই প্রায় এক। এ দেশে এলে কখনোই আমার মনে হয় না ভিনদেশে এসেছি।’
শর্মিলা ঠাকুর বলেন, ‘চলচ্চিত্রে অভিনয় করেই আমার পরিচয়। একজন শিল্পী হিসেবে আমি চাইব বাংলাদেশ ও ভারতের মধ্যে শিল্প ও সংস্কৃতি আদানপ্রদান হোক। যৌথ প্রযোজনার মাধ্যমে চলচ্চিত্রকে এগিয়ে নিয়ে যাক দুই দেশই।’
‘শর্মিলা ঠাকুর-জিৎ গাঙ্গুলি লাইভ ইন ঢাকা’ শিরোনামের কনসার্টটি আয়োজন করেছে ‘চ্যানেল লাইভ এন্টারটেইনমেন্ট’। অনুষ্ঠানটির উপস্থাপনা করেছেন টিভি উপস্থাপক দেবাশীষ বিশ্বাস ও অভিনেত্রী স্বাগতা।
কনসার্ট উপলক্ষে গতকাল শুক্রবার দুপুরে ঢাকায় আসেন বলিউডের কিংবদন্তি এ অভিনেত্রী। সঙ্গে ছিলেন স্বনামখ্যাত সংগীতশিল্পী জিৎ গাঙ্গুলি।
শর্মিলা ঠাকুর ১৯৫৯ সালে সত্যজিৎ রায় পরিচালিত ‘অপুর সংসার’ ছবির মাধ্যমে চলচ্চিত্রে অভিনয় শুরু করেন। প্রথম ছবিতেই তিনি ব্যাপক প্রশংসিত হন। এরপর চলচ্চিত্রে তিনি নিজের অবস্থান তৈরি করেন। ২০১৩ সালে ভারতের রাষ্ট্রীয় সম্মাননা ‘পদ্মভূষণ’ লাভ করেন শর্মিলা। ভারতের সেন্সর বোর্ডের প্রধান ও কান চলচ্চিত্র উৎসবে জুরি বোর্ডের সদস্য ছিলেন তিনি। বর্তমানে তিনি ইউনিসেফের শুভেচ্ছা দূত হিসেবে দায়িত্ব পালন করছেন।
জিৎ গাঙ্গুলি ভারতের একজন সংগীত পরিচালক ও গায়ক। হিন্দি ও বাংলা সংগীত পরিচালনার পাশাপাশি গান গেয়েও জনপ্রিয়তা পেয়েছেন তিনি।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 128 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ