রুয়েটে এবার শিক্ষকদের ক্লাস বর্জন

Print

শিক্ষার্থীদের পর এবার অনির্দিষ্টকালের জন্য ক্লাস-পরীক্ষা বর্জন করে ধর্মঘট শুরু করেছেন রাজশাহী প্রকৌশল ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়ের (রুয়েট) শিক্ষকরা।
শিক্ষকদের জিম্মি করে দাবি আদায়ে উসকানিদাতা এবং শিক্ষকদের সঙ্গে অসৌজন্যমূলক আচরণের সঙ্গে জড়িতদের চিহ্নিত করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবিতে আজ সোমবার সকাল থেকে তারা ধর্মঘট শুরু করেছেন।

এর আগে রোববার সন্ধ্যায় শিক্ষক সমিতির এক সভায় এ ধর্মঘটের সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়।
বিশ্ববিদ্যালয় সূত্রে জানা গেছে, বিশ্ববিদ্যালয়ের ১৪ ও ১৫ শিক্ষাবর্ষের শিক্ষার্থীরা ৩৩ ক্রেডিট পদ্ধতি বাতিলের দাবিতে গত ২৮ জানুয়ারি থেকে ক্লাস পরীক্ষা বর্জন করে আন্দোলন করে আসছে। এরপর দাবি আদায়ে শনিবার দুপুর ২টা থেকে রোববার দুপুর ২টা পর্যন্ত উপাচার্যকে তার নিজ কক্ষে অবরুদ্ধ করে রাখেন শিক্ষার্থীরা।
এ সময় উপাচার্যের কক্ষে বিশ্ববিদ্যালয়ের প্রায় ২০ জন শিক্ষক অবরুদ্ধ ছিলেন। পরে রোববার একাডেমিক কাউন্সিলের জরুরি সভায় শিক্ষার্থীদের দাবি মেনে নিলে শিক্ষার্থীরা তাদের কর্মসূচি প্রত্যাহার করেন।
শিক্ষার্থীদের কর্মসূচি প্রত্যাহারের পর এবার শিক্ষকরা আন্দোলনের ঘোষণা দিল। শিক্ষকদের অভিযোগ, শিক্ষার্থীরা আন্দোলন চলাকালে শিক্ষকদের অবরুদ্ধ করে রাখেন। এছাড়া সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে শিক্ষকদের নিয়ে বাজে মন্তব্য করা হয়। তাই এই আন্দোলনে উসকানিদাতা ও অসৌজন্যমূলক আচরণের সঙ্গে জড়িতদের বিরুদ্ধে শাস্তি দাবি করছেন তারা।
রুয়েট শিক্ষক সমিতির সভাপতি অধ্যাপক নীরেন্দ্রনাথ মুস্তাফী জানান, আন্দোলন চলাকালে শিক্ষকদের সঙ্গে বিভিন্নভাবে অসৌজন্যমূলক আচরণ করা হয়েছে। ফেসবুকে বাজে মন্তব্য করা হয়েছে। যা শিক্ষকদের জন্য মানহানিকর। জড়িতদের দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবি জানান তিনি।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 104 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ