সত্যিই পেটের মধ্যে আগুন জ্বলে!

Print

কথায় আছে, জঠরাগ্নি অর্থাৎ পেটের আগুন। কিন্তু এটা কি জানা আছে যে, পেটে সত্যিই আগুন রয়েছে! হ্যাঁ, সম্প্রতি একটি গবেষণায় জানা গেছে, মানুষের পেটে সত্যিই এক ধরনের ‘আগুন’ রয়েছে। গবেষণা অনুসারে, খাওয়ার সঙ্গে সঙ্গে ওই ‘আগুন’ জ্বলে ওঠে। কিন্তু তা শরীরের পক্ষে ক্ষতিকারক নয়, বরং উপকারী। এই আগুন সুরক্ষা তন্ত্র হিসেবে কাজ করে যা খাবারের সঙ্গে পেটে চলে আসা ব্যাকটেরিয়ার সঙ্গে লড়াই করে।
গবেষণায় জানা গেছে, ওই আগুন ভারী শরীরের ব্যক্তিদের ক্ষেত্রে থাকে না। এর ফলে ডায়াবেটিসের আশঙ্কা থাকে। অন্যদিকে, স্বাস্থ্যবান মানুষের ক্ষেত্রে শর্ট টার্ম রেসপনস হিসেবে জ্বলে উঠে ওই ‘আগুন’ যা রোগ প্রতিরোধ ব্যবস্থাকে সক্রিয় করার ক্ষেত্রে গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা নেয়।

সুইজারল্যান্ডের বেসেল বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষরদের এই গবেষণায় জানা গেছে, রক্তে শর্করার মাত্রার ভিত্তিতে ম্যাক্রোফেজের (কোষের এক প্রকার প্রতিরক্ষা সংক্রান্ত উপাদান) সংখ্যা খাওয়ার সময় অন্ত্রের চতুর্দিকে বেড়ে যায়। এই বার্তাবাহী উপাদান ইন্টারলিউকিন-১ (আইএল-১ বিটা) উত্পাদন করে, যা অগ্নাশয়ে বিটা কোষাংশকে ইনসুলিন উত্পাদনে উত্তেজিত করে এবং ম্যাক্রোফেজ আইএল-১ বিটাকে উত্পাদনের সঙ্কেত পৌঁছে দেয়।
ইনসুলিম ও আইএল-১ বিটা যৌথভাবে রক্তে শর্করার মাত্রা স্বাভাবিক রাখার কাজ করে। আর আইএল-১ বিটা প্রতিরক্ষা প্রণালীতে গ্লুকোজ সরবরাহ নিশ্চিত করে।
গবেষকরা জানিয়েছেন, পরিপাক প্রক্রিয়া ও প্রতিরক্ষা প্রণালী জীবাণু ও পুষ্টির ওপর নির্ভর করে।
গবেষক দলের প্রধান ইরেজ ড্রোর বলেছেন, পর্যাপ্ত পুষ্টিকর পদার্থ প্রতিরক্ষা প্রণালীকে বাইরে থেকে আসা জীবাণুর সঙ্গে লড়াই করতে সাহায্য করে।
‘নেচার ইমিউনোলজি’ পত্রিকায় এই গবেষণা রিপোর্ট প্রকাশিত হয়েছে।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 191 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ