১৯১ রানেও বাংলাদেশকে হারানো যেত- রঙ্গনা হেরাথ

Print
শ্রীলঙ্কার আত্মবিশ্বাস ছিল ২০০ রানের লিড পেলে তারা ম্যাচটি জিততে পারবে। কিন্তু তারা ২০০ রান পায়নি। ১৯১ রানের টার্গেট ছুড়ে দিয়েছিল বাংলাদেশকে। আত্মবিশ্বাসী অধিনায়ক রঙ্গনা হেরাথ জানিয়েছেন এই রানেও তারা বাংলাদেশকে হারাতে পারত। সে পথেই তারা ছিল। কিন্তু মধ্যাহ্ন বিরতির পর তামিম ও সাব্বির তাদের কাছ থেকে ম্যাচটি ছিনিয়ে নেয়। এর আগে লঙ্কানরা ভারত ও পাকিস্তানকে এর চেয়ে কম রানের টার্গেট দিয়েও হারিয়েছিল।
ম্যাচ শেষে সংবাদ সম্মেলনে রঙ্গনা হেরাথ বলেন, ‘আমি ভেবেছিলাম এই রানেও বাংলাদেশকে আটকে রাখা যাবে। অল্প রানের টার্গেট দিয়ে এর আগে আমরা ভারত ও পাকিস্তানের মতো দলকে রুখে দিয়েছিলাম। আসলে আমাদের দলে তিনজন স্পিনার ছিল। আমি আত্মবিশ্বাসী ছিলাম ম্যাচটি জিতে যাব। শুরুটাও ভালো করেছিলাম। কিন্তু মধ্যাহ্ন বিরতির পর ম্যাচটি আমাদের হাতছাড়া হয়ে যায়। আমাদের আসলে ভুল কম করতে হবে। আমি মনে করি ফিল্ডিং ও ব্যাটিংয়ের সময় আমরা অনেক ভুল করেছি। ফিল্ডিং করার সময় আমরা বেশ কিছু গুরুত্বপূর্ণ ক্যাচ মিস করেছি। আর সেটাই ছিল এই ম্যাচে হারার প্রধান কারণ।’

বাংলাদেশের প্রশংসা করে লঙ্কান দলপতি বলেন, ‘সিরিজ শুরুর আগেই আমি বলেছিলাম যে সিরিজটি আমাদের জন্য চ্যালেঞ্জিং হবে। কারণ, দুটি দলই সমানভাবে ভারসম্যপূর্ণ। গল টেস্টে আমরা প্রায় ৫০০ রান করেছিলাম এবং ভালো সুযোগ পেয়েছিলাম। এখানে আমরা একই কাজ করতে পারিনি। এই ম্যাচে যে দলটি ভালো খেলেছে তারা জিতেছে।’

তিনি আরো বলেন, ‘বাংলাদেশ নিশ্চিতভাবে অনেক উন্নতি করেছে। আগে তারা খুব বেশি চাপ নিতে পারত না। কিন্তু এখন তারা আমাদের পরিকল্পনাকেও কাউন্টার দিচ্ছে। তারা বেশ বুদ্ধিমত্তাও অর্জন করেছে। আসলে এই টেস্টের দ্বিতীয় ইনিংসে আমরা ভালো ব্যাট করেছি। উপল থারাঙ্গা আউট হওয়ার পর দিমুথ ও কুশাল মেন্ডিস ভালো করছিল। এরপর আমরা ৪০ রানের মধ্যে দ্রুত ৫টি উইকেট হারিয়ে বসি। এটাই ছিল ম্যাচের প্রধান পয়েন্ট। এটিই ম্যাচটি আমাদের থেকে ছিনিয়ে নিয়েছে। এমনটি হওয়া উচিত ছিল না। সেখান থেকেই আমাদের ধস শুরু হয়।’

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 158 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ