২০১৬: আলোচিত যা ঘটেছে বলিউডে…

Print
তারকাদের প্রেম, বিয়ে, সন্তানের জন্ম থেকে শুরু করে শিল্পী নিষিদ্ধ করা এবং তারকাদের মধ্যে নতুন বন্ধুত্ব তৈরির খবরও ছিল বলিউডের শীর্ষ খবরের তালিকায়। এর মধ্য থেকেই কিছু খবরের কথা থাকছে এখানে।
কারিনা কাপুরকারিনা কাপুর  ‘সাইফিনা’র ছেলে

প্রথমে কিছুটা লুকোচুরি করেছিলেন সাইফ আলী খান ও কারিনা কাপুর। তবে এই বছরের মাঝামাঝি সময়ে এসে কারিনার মা হওয়ার খবরটি তাঁর স্বামী সাইফ আনুষ্ঠানিকভাবে সবাই জানান। এরপর শুরু হয় নতুন জল্পনা–কল্পনা। ‘সাইফিনা’ জুটির ছেলে হবে, না মেয়ে? কত তারিখে হবে তার জন্ম—এমন নানা কিছু। একপর্যায়ে কারিনা তো বিরক্ত হয়ে বলেই বসলেন, ‘আমি মা হতে চলেছি, মরে যাইনি।’ অবশেষে ২০ ডিসেম্বর এই তারকা জুটির ঘরে জন্ম নিয়েছে ছেলে তৈমুর আলী খান পতৌদি। এখন চলছে তাঁদের ছেলের নাম নিয়ে তর্ক–বিতর্ক।

নতুন করে পুরোনো বন্ধুত্ব
বলিউডের দুই খান সালমান ও শাহরুখের মধ্যে একসময় ছিল গলায়-গলায় ভাব। ২০০৮ সালে এক পার্টিতে কথা-কাটাকাটির জের ধরে তাঁদের সম্পর্ক খারাপ হয়। এরপর বহুদিন দুই খানের মধ্যে মুখ দেখাদেখি বন্ধ ছিল। এমনকি একে অন্যের ছায়াও মাড়াতেন না। ২০১৩ সালে এক ইফতারের দাওয়াতে একে অন্যকে বহুদিন পর আলিঙ্গন করেন। ধীরে ধীরে তাঁদের সম্পর্ক স্বাভাবিক হতে থাকে। এ বছর তাঁদের বন্ধুত্ব ঠিক যেন আগের রূপ ফিরে পায়। গভীর রাতে সালমান-শাহরুখের সাইকেল ভ্রমণ, সুলতান ছবির জন্য সালমানকে দেওয়া শাহরুখের শুভেচ্ছাবার্তা, শাহরুখের বাড়িতে সালমানের বেড়াতে যাওয়া—সবই ছিল এ বছর খবরের শিরোনামে।
আলোচনায় ভাঙন
এ বছর বলিউডে বিয়ে ও প্রেমে ভাঙনও ছিল দারুণ আলোচনায়। অনেক বড় বড় জুটিতে বিচ্ছেদের সিলমোহর পড়েছে এ বছর। এর মধ্যে আছেন রণবীর কাপুর-ক্যাটরিনা কাইফ, ফারহান আখতার-অধুনা ভবানী, আরবাজ খান-মালাইকা অরোরা, সুশান্ত সিং রাজপুত-অঙ্কিতা লোখান্ডের মতো জুটিগুলো। অভিনেত্রী আনুশকা শর্মা ও ক্রিকেটার বিরাট কোহলিও এ বছর তাঁদের সম্পর্কে ভাঙা-গড়া নিয়ে বারবার আলোচনায় উঠে এসেছেন। সবশেষ বাগদানের খবর দিয়ে তাঁরা আবারও জানান দিলেন, এ বছরের শুরু দিকের ভাঙনের খবরগুলো নেহাত গুজব ছাড়া আর কিছুই ছিল না।
সালমানের ‘ধর্ষিতা নারী’ মন্তব্য নিয়ে বিতর্ক
সুলতান ছবিতে অভিনয়ের জন্য শারীরিক অনেক কসরত শিখতে হয়েছিল সালমান খানকে। ছবির শুটিংয়ে যখন কুস্তির দৃশ্য থাকত, তখনো নাকি অনেক কষ্ট হতো তাঁর। সুলতান মুক্তির আগে ছবির একটি প্রচারণা অনুষ্ঠানে সংবাদ সম্মেলনে সালমান বলেন, ‘কুস্তির দৃশ্যে অভিনয় করার পর আমার নিজেকে ধর্ষণের শিকার নারীর মতো মনে হতো।’ সালমান খানের এই মন্তব্য তখন অনেকেই সহজভাবে নিতে পারেননি। এই মন্তব্যের কারণে আইনি নোটিশও পেয়েছিলেন সাল্লু। অবশ্য শেষ নাগাদ এই বিতর্কের কারণে ক্ষতির থেকে লাভই বেশি হয়েছে সুলতান ছবির। মাঝখান দিয়ে চুটিয়ে ব্যবসা করে নিয়েছে সুলতান।
সানির সঙ্গে ‘খান’দের বন্ধুত্ব
নানা কারণেই সানি লিওনকে নিয়ে বলিউডে অনেক বিতর্ক। তবে এ বছর বলিউডের ‘খান’দের সঙ্গে সখ্য সানিকে নিয়ে এসেছে নতুন করে আলোচনায়। সালমান খানের টিভি শো ‘বিগ বস’-এর কারণেই তো বলিউডে আজ প্রতিষ্ঠিত সানি। এ বছর বাকি দুই খানের সঙ্গেও ভালো ভাব করেছেন এই অভিনেত্রী। আমিরের বাড়িতে সানি লিওন ও তাঁর স্বামীর নৈশভোজের নিমন্ত্রণ ছিল বছরের অন্যতম আলোচিত একটি বিষয়। আর শাহরুখের ছবি রইস-এ কিং খানের সঙ্গে ‘লায়লা’ গানে নেচে সানি নতুন করে আলোড়ন তুলেছেন।

বিপাশা বসু ও করণ সিংবিপাশা বসু ও করণ সিং

আলোচিত বিয়ে
২০১৫ সালে অ্যালোন ছবিতে অভিনয় করতে গিয়েই বিপাশা বসু ও করণ সিং গ্রোভারের বন্ধুত্ব। বন্ধুত্ব থেকে প্রেম। যদিও তাঁরা এই প্রেমের বিষয়টি অনেক দিন ধরে চেপে রেখেছিলেন। এপ্রিলের শুরুতে ঘরোয়া পরিবেশে বাগদান সারেন তাঁরা। এরপর ইনস্টাগ্রামে বাগদানের ছবি প্রকাশ করে বিয়ের ঘোষণা দেন। সেই মাসেই জাঁকজমক অনুষ্ঠান করে বিয়ের কাজটি সারেন। বিপাশা-করণের মেহেদি, বিয়ে ও বিবাহোত্তর সংবর্ধনার ছবি সামাজিক যোগাযোগমাধ্যম ও গণমাধ্যমে বেশ ফলাও করে প্রকাশ পায়। তা ছাড়া আরও যে বিয়েগুলো এ বছর বলিউডে সাড়া ফেলেছে, সেগুলো হলো অভিনেত্রী অসিন ও রাহুল শর্মা, অভিনেত্রী প্রীতি জিনতা ও জেনে গুডএনাফ, অভিনেত্রী ঊর্মিলা মাতন্ডকর ও মির মোহসিন আখতারের বিয়ে।
বলিউডে পাকিস্তানি শিল্পী নিষিদ্ধ
ভারতনিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরের উরির সেনাঘাঁটিতে আক্রমণের পর বলিউড থেকে পাকিস্তানি শিল্পীদের নিষিদ্ধ করে মহারাষ্ট্র নবনির্মাণ সেনা নামের ভারতের একটি রাজনৈতিক দল। পরে আবার বিশেষ শর্ত মেনে সেই সব সিনেমা মুক্তির নির্দেশ দেওয়া হয়। পাকিস্তানেও ভারতীয় সিনেমার প্রদর্শন বন্ধ রাখা হয়েছিল। সম্প্রতি এই নিষেধাজ্ঞা উঠিয়ে নিয়েছে পাকিস্তান। তবে ভারতে এখনো নিষিদ্ধ পাকিস্তানের শিল্পীরা।
হৃতিক-কঙ্গনা কেলেঙ্কারি
হৃতিক রোশন ও কঙ্গনা রনৌতের প্রেম, ঘনিষ্ঠ ছবি ও ই-মেইল ফাঁস হওয়ার বিতর্কে এ বছর ভারতীয় গণমাধ্যমগুলো ছিল সরগরম। এই বছর দুজনেরই একটি করে ছবি মুক্তি পেয়েছে। তবে পরস্পরের কাদা ছোড়াছুড়ি ও সম্পর্ক নিয়ে বিতর্কের কারণে প্রায় পুরো বছরই তাঁরা আলোচনায় ছিলেন।
আলোচনায় সেন্সর বোর্ডভারতীয় সেন্সর বোর্ড ও এর সভাপতি পেহেলাজ নিহালানি খুব সম্ভবত ২০১৬ সালে সবচেয়ে বেশি সমালোচিত হয়েছেন। উড়তা পাঞ্জাব ছবির ৮৯টি দৃশ্য কর্তনের সিদ্ধান্ত নিয়ে বেশ তোপের মুখে পড়েছিলেন পেহেলাজ। এরপর মুক্তির আগেই উড়তা পাঞ্জাব, গ্রেট গ্র্যান্ড মাস্তির সেন্সর কপি ফাঁস হওয়ায় নতুন বিতর্কের সৃষ্টি হয়। আর বছরের শেষের দিকে এসে ছবিতে ১০ সেকেন্ডের চেয়ে দীর্ঘ চুমুর দৃশ্য নিষিদ্ধ করার ঘোষণা দিয়ে রীতিমতো হাসির খোরাক জোগায় ভারতের সেন্সর বোর্ড।

জেল থেকে বেরোনোর পর স্ত্রী ও দুই সন্তানের সঙ্গে সঞ্জয়জেল থেকে বেরোনোর পর স্ত্রী ও দুই সন্তানের সঙ্গে সঞ্জয় জেল থেকে মুক্তি
এ বছরই জেল থেকে মুক্তি পেয়েছেন অভিনেতা সঞ্জয় দত্ত। ১৯৯৩ সালে মুম্বাইয়ে ধারাবাহিক বিস্ফোরণ মামলায় দোষী সাব্যস্ত হন তিনি। কারাদণ্ড ভোগ করেন প্রায় পাঁচ বছর। মাঝে অবশ্য তিনি কয়েকবার প্যারোলে মুক্তি পেয়েছিলেন। কারাভোগের সময় ভালো ব্যবহার করায় প্রতি মাসে সঞ্জয়ের সাজা থেকে ৮ দিন করে মোট ২৫৬ দিন কমিয়ে দেওয়া হয়েছিল।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 132 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
error: ওয়েবসাইটের কোনো লেখা বা ছবি অনুমতি ছাড়া নকল করা বা অন্য কোথাও প্রকাশ করা সম্পূর্ণ বেআইনি