আলোচিত শিল্পপতি রাগীব আলী কারাগারে

Print

192240ragib-ali-kalerkantho-pic

সিলেটের আলোচিত শিল্পপতি রাগীব আলীকে ভারতের করিমগঞ্জে আটকের পর বিয়ানীবাজার সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে। পরে তাকে আদালতের নির্দেশে কারাগারে পাঠানো হয়।
আজ বৃহস্পতিবার বিকেল পৌনে ৩টার দিকে তাকে আসামের পুলিশ ভারতের সীমান্তরক্ষী বাহিনী বিএসএফ এর মাধ্যমে বর্ডার গার্ড বাংলাদেশের (বিজিবি) কাছে হস্তান্তর করে।
এদিকে রাগীব আলীকে বিকেলে সিলেটের অতিরিক্ত মহানগর হাকিম আদালতের বিচারক সরাবান তহুরার আদালতে হাজির করা হয়। আদালত তাকে কারাগারে পাঠানোর নির্দেশ দেয়।
ভূমি মন্ত্রণালয়ের স্মারক (চিঠি) জালিয়াতি ও প্রতারণা করে সিলেটের তারাপুর চা বাগানের দুই হাজার কোটি টাকার দেবোত্তোর সম্পত্তি দখলের অভিযোগে তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারী পরোয়ানা জারির পর রাগীব আলী ভারতে পালিয়ে যান ।
রাগীব আলীর বিরুদ্ধে সিলেট জেলার বিশ্বনাথ থানায় দু’টি মামলা রয়েছে। তার বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানাও রয়েছে। পরোয়ানাভূক্ত রাগীব আলী গত ৩ মাস যাবৎ পলাতক রয়েছেন।
বৃহস্পতিবার সকালে রাগীব আলীকে ভারতের করিমগঞ্জ ইমিগ্রেশন পুলিশ আটক করে । ভিসার মেয়াদ শেষ হওয়ায় সেদেশের ইমিগ্রেশন পুলিশ তাকে আটক করে।
বিএসএফ সদস্যরা বৃহস্পতিবার বিকেলে সিলেটের বিয়ানীবাজারের শেওলা সীমান্ত দিয়ে রাগীব আলীকে বিজিবির কাছে হস্তান্তর করে। এসময় বিজিবি’র কর্মকর্তারা তাকে বিয়ানীবাজার থানা পুলিশের কাছে সোপর্দ করে।
বিয়ানীবাজার থানা পুলিশ তাকে বিশ্বনাথ থানার কাছে হস্তান্তর করে।
বিয়ানীবাজার থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) চন্দন চক্রবর্তী এ তথ্য নিশ্চিত করে জানান, রাগীব আলীর বিরুদ্ধে বিশ্বনাথ থানায় দু’টি মামলা রয়েছে। তাই তাকে বিশ্বনাথ থানা পুলিশের কাছে হস্তান্তর করা হয়েছে।
সিলেট জেলার অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুজ্ঞান চাকমা জানান, রাগীব আলীকে সিলেটের আদালতে নেয়া হয়েছে। আদালতের নির্দেশে তাকে কারাগারে পাঠানো হয়।
গত ১০ আগস্ট রাগীব আলী ও তার একমাত্র ছেলে আবদুল হাইসহ ছয় জনের বিরুদ্ধে গ্রেফতারি পরোয়ানা জারি করে আদালত। পরোয়ানা জারির দিনই তিনি সিলেটের জকিগঞ্জ সীমান্ত দিয়ে স্বপরিবারে ভারত পালিয়ে যান । গত ১২ নভেম্বর সিলেটের জকিগঞ্জ সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে ফিরে আসার পর রাগীব আলীর ছেলে আব্দুল হাইকে বাংলাদেশের ইমিগ্রেশন পুলিশ গ্রেফতার করে। আব্দুল হাই বর্তমানে কারাগারে আছেন।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 46 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ