চলচ্চিত্রে অভিনয় করতে গিয়ে পেছনে ফিরে আসার কোনো ইচ্ছা আমার নেই

Print

%e0%a6%9a%e0%a6%b2%e0%a6%9a%e0%a7%8d%e0%a6%9a%e0%a6%bf%e0%a6%a4%e0%a7%8d%e0%a6%b0%e0%a7%87-%e0%a6%85%e0%a6%ad%e0%a6%bf%e0%a6%a8%e0%a7%9f-%e0%a6%95%e0%a6%b0%e0%a6%a4%e0%a7%87-%e0%a6%97%e0%a6%bfকিছুদিন আগেই বাবা হারিয়েছেন অভিনেত্রী ঊর্মিলা শ্রাবন্তী কর। পিতৃহীন হয়ে অনেকটা দিশেহারা হয়ে পড়েছিলেন তিনি। কিছুতেই ব্যাপারটি সহজভাবে নিতে পারেছিলেন না। তাই বেশকিছু নাটকের সিডিউল দেয়া থাকলেও কাজে ফিরতে অনেকটা সময় লেগে যায় ঊর্মিলার। এ মাসের শুরুর দিকে কাজে নিয়মিত হন তিনি। এ প্রসঙ্গে ঊর্মিলা বলেন, প্রত্যেক সন্তানের কাছেই তার বাবা-মা অমূল্য সম্পদ। বাবা চলে যাওয়ার পর সেটা আরও বেশি করে উপলব্ধি করছি। তার চলে যাওয়ায় মানসিকভাবে বেশ ভেঙে পড়ায় এতদিন শুটিংয়ে অংশ নিতে পারিনি। শিডিউল দেয়া থাকলেও পরিচালকরা বেশ ছাড় দিয়েছেন আমাকে। অবশেষে ধাক্কা সামলে শুটিংয়ে ফিরেছি। কাজে মনোযোগ দেয়ার চেষ্টা করছি। বাবার কথা সারাক্ষণই মনে পড়ে। মনকে কিছুতে সান্তনা দিতে পারি না। প্রতিটি মুহূর্ত মনে হয় এই বুঝি বাবা আমায় ডাকছেন। ২০০৯ সালে লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টার প্রতিযোগিতার মধ্য দিয়ে শোবিজ অঙ্গনে পথচলা শুরু করেন ঊর্মিলা। ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই তার অভিনয় দর্শক হৃদয়ে স্থান করে নিতে সক্ষম হয়। ছোটবেলা থেকেই মিডিয়ায় কাজ করার স্বপ্ন বুনতেন তিনি। সেই ভাবনা থেকেই শৈশবে মায়ের কাছে নিয়মিত গান ও নাচের অনুশীলন করতেন। মা তৃপ্তি কর মেয়ের এই স্বপ্নকে বাস্তব করে তোলার লক্ষ্যে লাক্স চ্যানেল আই সুপারস্টার প্রতিযোগিতায় তার নাম লেখান। ঊর্মিলাও সেই সুযোগ হাত ছাড়া করেননি। সেই প্রতিযোগিতায় তিনি তার বুদ্ধি ও সৌন্দর্যের গুণে ষষ্ঠ স্থান অধিকার করে নিয়েছিলেন। এরপর থেকেই শোবিজের এই রঙিন দুনিয়ায় তার অভিনয়ের ঊজ্জ্বল আলো ছড়িয়ে আসছেন। ঊর্মিলার ক্যারিয়ারে এখন সুসময় যাচ্ছে। বর্তমানে তার অভিনীত বেশ কিছু ধারাবাহিক নাটক বিভিন্ন চ্যানেলে নিয়মিত প্রচার হচ্ছে। এর মধ্যে রয়েছে নাজনীন হাসান চুমকীর ‘নাগর দোলা’, আশুতোষ সুজনের ‘থ্রি সিস্টার’, আলভি আহমেদের ‘দ্য কর্পোরেট’, অনিরুদ্ধ রাসেলের ‘টাইম’ প্রভৃতি। এছাড়াও প্রচারের অপেক্ষায় রয়েছে শহিদুজ্জামান সেলিমের ‘এক ঝাঁক মৃত জোনাকি’ ও সাখাওয়াৎ মানিকের ‘মেঘে ঢাকা শহর’। এসব নাটক ছাড়া সম্প্রতি এজাজ মুন্নার পরিচালনায় ‘বেটার হাফ’ নামের একটি ধারাবাহিকে অভিনয় শুরু করেছেন ঊর্মিলা। ব্যস্ততা প্রসঙ্গে এ অভিনেত্রী বলেন, আমি সবসময় মানসম্পন্ন গল্পের নাটকে অভিনয় করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করি। তাই বাছাই করে এসব ধারাবাহিকে অভিনয় করছি। প্রতিটি ধারাবাহিকের গল্প ও চরিত্র খুবই ভালো লেগেছে। তাই তো এগুলোতে অভিনয়ের জন্য প্রতিদিন অনেকের কাছ থেকে প্রশংসা পাচ্ছি। আগামীতেও সুন্দর ও মানসম্পন্ন গল্পের ধারাবাহিকে অভিনয় করে যেতে চাই। এদিকে ধারাবাহিকের পাশাপাশি বর্তমানে খ- নাটকেও অভিনয় করছেন ঊর্মিলা। কয়েকদিন আগেই কক্সবাজার গিয়েছেন তিনি। সেখানে সাখাওয়াৎ মানিকের পরিচালনায় দুটি ও বিইউ শুভর পরিচালনায় একটি খ- নাটকে অভিনয় করেছেন। তিনটি নাটকেই ঊর্মিলার সহশিল্পী হিসেবে রয়েছেন সিয়াম আহমেদ। এ কাজগুলো শেষ করে আজই(বুধবার) কক্সবাজার থেকে ঢাকা ফিরছেন এ অভিনেত্রী। ছোটপর্দায় ঊর্মিলা দক্ষতার পরিচয় দিলেও চলচ্চিত্রে তাকে এখনো দেখা যায়নি। তবে ভালো মানসম্পন্ন গল্পের ছবিতে অভিনয়ের ইচ্ছে রয়েছে বলে জানিয়েছেন তিনি। এ প্রসঙ্গে ঊর্মিলা বলেন, ক্যারিয়ারের শুরু থেকেই চলচ্চিত্রে কাজ করার স্বপ্ন দেখছি। এ স্বপ্ন আমি বাস্তবে রূপ দিতে চাই। তবে এক্ষেত্রে একটু সময় নিয়ে এগোচ্ছি। আমি ‘হঠাৎ বৃষ্টি’ গল্পের মতো ছবিতে কাজ করতে চাই। তাছাড়া ছোটপর্দার অনেকের মতো চলচ্চিত্রে অভিনয় করতে গিয়ে পেছনে ফিরে আসার কোনো ইচ্ছা আমার নেই। অভিনয়ের পাশাপাশি ব্যাক্তিজীবনটা ভালোই উপভোগ করছেন ঊর্মিলা। বিশেষত পরিবারের সঙ্গে সময় কাটাতে বেশি পছন্দ করেন তিনি। এ প্রসঙ্গে বলেন, অভিনয়ের বাইরে যতটা সময় পাই পরিবারকে দিই। পরিবারই আমার সব ভালোলাগার জায়গা। সপ্তাহে অন্তত দুইদিন বাবা-মা ও শ্বশুর-শাশুড়িকে সময় দিই। আমার রান্না করতে ভালো লাগে। সব ধরনের বাঙালি রান্না আমি করতে পারি। আমার হাতের রান্না খেয়ে সবাই বলে, মায়ের রান্নার গুণটা আমি পেয়েছি। লাক্স চ্যানেল আই সুপার স্টার প্রতিযোগিতা থেকে এসে নিয়মিত কাজ করে চলেছেন ঊর্মিলা। নিজের ক্যারিয়ারের জন্য প্ল্যাটফরমটিকে আশীর্বাদ বলে মনে করেন তিনি। এ প্রসঙ্গে ঊর্মিলা বলেন, এটা আমার ক্যারিয়ারের জন্য আশীর্বাদস্বরূপ বলতে পারেন। হয়তো এখানে না আসলে আজ আমার যত পরিচিতি দেখছেন সেটা পেতাম না।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 112 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ