তাঁরা বিতর্কেরও নায়িকা!

Print

%e0%a6%a4%e0%a6%be%e0%a6%81%e0%a6%b0%e0%a6%be-%e0%a6%ac%e0%a6%bf%e0%a6%a4%e0%a6%b0%e0%a7%8d%e0%a6%95%e0%a7%87%e0%a6%b0%e0%a6%93-%e0%a6%a8%e0%a6%be%e0%a7%9f%e0%a6%bf%e0%a6%95%e0%a6%beছবিতে অভিনয় করে যতটুকু না আলোচনায় আসছেন, তার চেয়ে বেশি আলোচনা তৈরি হচ্ছে তারকাদের ব্যক্তিজীবনের কার্যক্রম নিয়ে। ঢালিউডের বেশ কয়েকজন অভিনেত্রীর বেলায় এই জিনিসটি ইদানীং বেশি দেখা যাচ্ছে।
পরীমনির কথাই ধরা যাক। বর্তমানে নিজের ফেসবুক অ্যাকাউন্টের কভারে তাঁর সঙ্গে এক ‘রহস্যময়’ ব্যক্তির ছবিকে ঘিরে রহস্য তৈরি হয়েছে। চলচ্চিত্রপাড়া ও দর্শকমহলে বইছে আলোচনার ঝড়। তা ছাড়া এ বছরের ফেব্রুয়ারিতে একইভাবে চাঁদপুরে স্বপ্নজাল ছবির শুটিংয়ের ফাঁকে ফেসবুকে তিনি আংটি পরা এক ছবি দিয়ে নিজের বাগদানের ঘোষণা দিয়েও হয়েছিলেন আলোচিত। এভাবেই ফেসবুকে দেওয়া পোস্ট ও ছবি দিয়ে প্রায়ই আলোচনার মধ্যমণি হন পরীমনি। এটা কি আলোচনায় থাকার কৌশল? এ প্রশ্নের জবাবে পরীমনি বলেন, ‘আলোচনা হলো কি হলো না, তা নিয়ে মাথাব্যথা নেই আমার। ব্যক্তিজীবন কারও কাছে তো বিক্রি করে দিইনি। আমার আবেগ, অনুভূতি ও ভালো লাগাগুলো ফেসবুকে প্রকাশ করতেই পারি।’

কিন্তু সেই আলোচনা তো অভিনয়কে ছাপিয়ে যাচ্ছে—এমন মন্তব্যের পর পরীমনি বলেন, ‘অভিনয় দিয়ে আলোচিত হওয়ার কারণেই আমি আজকের পরীমনি হয়েছি। এ কারণেই কিন্তু আমার ব্যক্তিগত জীবন নিয়ে সবার এত আগ্রহ।’
এই সময়ের আরেক আলোচিত অভিনেত্রী নুসরাত ফারিয়া। মাত্র তিনটি ছবি মুক্তি পেয়েছে তাঁর। কিন্তু তাঁকে ঘিরে আলোচনার পরিধি কিন্তু কম নয়। তাঁর প্রথম ছবি আশিকী মুক্তির আগে থেকেই এই অভিনেত্রী নানাভাবে হয়েছেন খবরের শিরোনাম। কখনো তিনি আলোচনায় এসেছেন ঢালিউডে থিতু হতে না–হতেই বলিউডে পৌঁছে যাওয়ার খবরে, কখনো আবার তিনি ফেসবুকে আলোচিত হয়েছেন তাঁর জিমে ব্যায়াম করার ছবি পোস্ট করে। তবে এসব বিষয়কে বেশ ইতিবাচকভাবেই দেখছেন ফারিয়া। তিনি বলেন, ‘দেখুন, জিমে ব্যায়াম করার সময় ছবি আপলোড দিচ্ছি আমি। আমার হার্ড ওয়ার্ক (পরিশ্রম) দেখে দুজন মানুষও যদি নিজের শরীর ঠিক রাখতে ব্যায়ামাগারে যান, তা নিয়ে আলোচনা তো ইতিবাচক। আর তারকাদের নিয়ে মাতামাতি তো থাকবেই।’
এই তর্ক-বিতর্কের আলাপে চলে আসে মাহিয়া মাহির নামটিও। চলচ্চিত্রজগতে নিজের অভিনয় দিয়ে আলোচনায় এসেছেন এই অভিনেত্রী। তবে বিতর্ক কিন্তু তাঁরও পিছু ছাড়েনি। গত বছর বড় একটি প্রযোজনা প্রতিষ্ঠান ছেড়ে আসায় ব্যাপক আলোচনা হয় মাহিকে ঘিরে। একইভাবে বিয়ের আগে আরেকটি ছেলের সঙ্গে বিয়ের গুজব ছড়ালে তাঁকে ঘিরে হয় সমালোচনা। ওই ছেলের বিরুদ্ধে মামলা, ছেলেটির গ্রেপ্তার এবং এর পরের প্রতিটি ঘটনাই নানা সময়ে গুঞ্জনের নানা রকম রসদ জুগিয়েছে। এ প্রসঙ্গে মাহি বলেন, ‘ওই সময়ের ঘটনাগুলো ধরেই আলোচনা হয়েছে। আমি তো জোর করে বিতর্ক তৈরি করিনি।’
কিন্তু বিভিন্ন সময়ে ফেসবুকে নিজের ও পরিবারের অন্য সদস্যদের নিয়ে ছবি দিয়ে যে সমালোচনার মুখে পড়েন, সেগুলোকে কী বলবেন আপনি? এই প্রশ্নের জবাবে মাহি বলেন, ‘আমি কাজ দিয়েই মাহি হয়েছি। একজন তারকার সব বিষয়েই আগ্রহ থাকে মানুষের। আমার বেলায়ও এর ব্যতিক্রম হয়নি। তাই ব্যক্তিজীবনের সুখ-দুঃখের সময়গুলো বন্ধু, ভক্তদের সঙ্গে ভাগাভাগি করেছি। এটা নিয়ে বিতর্ক হবে, তা ভেবে কিছু করিনি।’
শাকিব খানের সঙ্গে জুটি গড়ে ঢালিউডে একের পর এক ব্যবসাসফল ছবি উপহার দিয়েছেন অপু বিশ্বাস। এই সফল অভিনেত্রীর অভিনয় নানা সময়ে হয়েছে আলোচিত ও প্রশংসিত। কিন্তু হঠাৎ করেই আড়ালে চলে যান এই ঢালিউড–কন্যা। তারপর থেকেই বিতর্ক শুরু হয়। এখন তিনিও অভিনয় দিয়ে আলোচনায় নেই আর। আছেন বিতর্কে। তাই তাঁকেও তো বলা যায় এখন, তিনি বিতর্কেরও নায়িকা।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 83 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ
error: