নতুন ফোন কেনার আগে জেনে নিন

Print

%e0%a6%a8%e0%a6%a4%e0%a7%81%e0%a6%a8-%e0%a6%ab%e0%a7%8b%e0%a6%a8-%e0%a6%95%e0%a7%87%e0%a6%a8%e0%a6%be%e0%a6%b0-%e0%a6%86%e0%a6%97%e0%a7%87-%e0%a6%9c%e0%a7%87%e0%a6%a8%e0%a7%87-%e0%a6%a8%e0%a6%bfমোবাইল ফোনের জগৎ এখন অত্যন্ত দ্রুত পরিবর্তিত হচ্ছে। এ অবস্থায় কোন ফোন কিনবেন তা নিয়ে অনেকেই দারুণ বিভ্রান্তিতে পড়েন। এ লেখায় তুলে ধরা হলো মোবাইল ফোনের তেমন কিছু গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। এক প্রতিবেদনে বিষয়টি জানিয়েছে সিনেট।
স্মার্টফোনের গুরুত্বপূর্ণ টিপস
১. আপনার প্রয়োজনীয়তা সবার আগে জেনে নিন। এখন নানা ধরনের স্মার্টফোন বাজারে পাওয়া যাচ্ছে। কিন্তু সব কাজের জন্য উপযুক্ত স্মার্টফোন পাওয়া কঠিন বিষয়। আর তাই আপনার প্রয়োজন জেনে নিন। সে প্রয়োজন অনুযায়ী স্মার্টফোনের তালিকা করুন।
২. চাহিদা কমাবেন না। কারণ স্মার্টফোন এখন বহু ধরনের। আপনার যে প্রয়োজন রয়েছে সে প্রয়োজন পূরণ করতে পারে এমন বহু স্মার্টফোনই বাজারে পাওয়া যায়।
৩. মোবাইল ফোন শুধু কনফিগার দেখেই পছন্দ করবেন না। এটি আপনার হাতে নিয়ে দেখা উচিত যে তা ঠিকঠাক আপনার সঙ্গে মানাচ্ছে কি না।
৪. আপনার যদি মোবাইলের কোনো একটি মডেল পছন্দ হয়ে যায় তাহলেই সঙ্গে সঙ্গে তা কিনে ফেলবেন না। এক্ষেত্রে বিভিন্ন স্থানে খোঁজ করুন যে এর কোনো ডিসকাউন্ট আছে কি না।
৫. মোবাইল ফোনটি কেনার আগেই তা আপনার মোবাইল ক্যারিয়ার কোম্পানিতে চলবে কি না জেনে নিন।
৬. আপনি যদি আগে থেকে কোনো ব্র্যান্ডের বা প্ল্যাটফর্মের ফোন ব্যবহার করে অভ্যস্ত হন এবং সে ফোনে বহু অ্যাপ ও অন্যান্য বিষয় ইনস্টল ও ব্যবহার করেন তাহলে সেটি রাখাই ভালো। আপনি যদি দীর্ঘদিন আইফোন ব্যবহার করেন তাহলে হঠাৎ করে অ্যান্ড্রয়েডে চলে গেলে তাতে বেশ অসুবিধার সম্মুখিন হবেন।
৭. স্মার্টফোনের নিরাপত্তায় কেস ও গ্লাস স্ক্রিন প্রটেক্টর ব্যবহার করুন। এতে স্মার্টফোনটি দীর্ঘদিন টিকবে।
অ্যান্ড্রয়েড ফোন কিনতে হলে
আপনি যদি অ্যান্ড্রয়েড ফোন কিনতে চান তাহলে অ্যান্ড্রয়েড ভার্সন ৭.০ কিংবা তার পরের ভার্সন কিনুন। এটি বেশ কিছু কারণে ব্যবহারকারীদের জন্য ভালো। এক্ষেত্রে এর ব্যাটারি সেভিং ফিচার ও অন্যান্য ফিচারও ব্যবহারকারীদের খুবই কাজে দেবে।
অ্যান্ড্রয়েড ৬.এক্স একটু পুরনো হলেও একেবারে বাজে নয়। কিছু ফোন নির্মাতা এর আপগ্রেডে দেরি করছে। তবে দামি ও জনপ্রিয় মডেলগুলো আপডেট সহজ।
আইফোন
আপনি যদি সস্তায় আইফোন কিনতে চান তাহলে পুরনো মডেল কিনতে পারেন। তবে এগুলোর পারফর্মেন্স স্বভাবতই নতুনগুলোর মতো হবে না।
এখনই নতুন ফোন প্রয়োজন না হলে ২০১৭ সাল পর্যন্ত অপেক্ষা করতে পারেন। আইফোনের ১০ বছর উপলক্ষে আগামি বছর দারুণ মডেলের আইফোন আসার কথা রয়েছে।
বড় নাকি ছোট?
আপনার যে ধরনের স্মার্টফোন পছন্দ তেমন ফোনই কিনুন। তবে ছোট স্ক্রিনের স্মার্টফোন এখন কমে যাচ্ছে। ক্রমে সবাই বড় স্মার্টফোন ব্যবহারে অভ্যস্ত হচ্ছে।
বড় স্ক্রিনের স্মার্টফোন কেনার সময় এর স্ক্রিনের রেজুলিশন দেখে নেবেন। অন্যথায় স্ক্রিন বড় হলেও তাতে খুব একটা সুবিধা হবে না।
ক্যামেরা
আপনি যদি ছবি তুলতে ভালোবাসেন তাহলে ভালো মানের ক্যামেরাযুক্ত স্মার্টফোন কিনুন। এক্ষেত্রে ১২ মেগাপিক্সেল বা তার চেয়ে বেশি মেগাপিক্সেলের ক্যামেরাসহ স্মার্টফোন দেখতে পারেন।
কিছু স্মার্টফোনে এখন পেছনেই দুটি ক্যামেরা থাকে। এর একটি ছবি তোলার জন্য এবং অন্যটি ছবির গভীরতা নির্ণয়ের জন্য ব্যবহৃত হয়। ফলে ছবির মান অনেক ভালো হয়।
এছাড়া ক্যামেরায় যে ফিচারগুলো থাকে যেমন অপ্টিক্যাল ইমেজ স্ট্যাবিলাইজার ও অন্যান্য ফিচার দেখে নিন।
ব্যাটারি ও পারফর্মেন্স
স্মার্টফোনের ব্যাটারি ও প্রসেসর অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ বিষয়। বর্তমানে তিন হাজার এমএএইচের বেশি শক্তির ব্যাটারি পাওয়া যাচ্ছে।
স্মার্টফোনটির র‌্যামও অত্যন্ত গুরত্বপূণ বিষয়। এটি যেন ভালো মানের হয় সেজন্য মনোযোগী হোন।
অক্টা কোর প্রসেসর সব সময় কোয়াড কোরের চেয়ে ভালো হয় না। তাই অক্টা কোর মানেই যে দারুণ স্মার্টফোন, একথা ভাববেন না।
কোয়ালকম স্ন্যাপড্রাগন প্রসেসরের ক্ষেত্রে ৮২১ বা নতুন মডেল ভালো।
অন্যান্য ফিচার
স্মার্টফোনের অন্যান্য ফিচার সঠিকভাবে রয়েছে কি না, জেনে নিন। এক্ষেত্রে যা যা দেখবেন-
ফিঙ্গারপ্রিন্ট স্ক্যানার,
পানি প্রতিরোধী ডিজাইন
মাইক্রো এসডি স্টোরেজ ব্যবস্থা
স্টিরিও অডিও স্পিকার
ইউএসবি সি কানেক্টর
রিমোভেবল ব্যাটারি

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 71 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ