নারী নির্যাতন বন্ধে চাই দৃষ্টিভঙ্গির পরিবর্তন

Print

       

নারী নির্যাতন প্রতিরোধ দিবস উপলক্ষে গতকাল এক আলোচনা সভায় বক্তব্য দেন সেন্ট্রাল উইমেন্স ইউনিভার্সিটির উপাচার্য পারভীন হাসান l প্রথম আলোদেশে প্রতিনিয়ত নারীদের ওপর যৌন ও মানসিক নির্যাতন করা হচ্ছে। এই নির্যাতনের বিরুদ্ধে সবাইকে একসঙ্গে কাজ করতে হবে। নারীদের প্রতি সবার দৃষ্টিভঙ্গি পরিবর্তন করতে হবে।
গতকাল বৃহস্পতিবার বেলা ১১টায় পুরান ঢাকার হাটখোলা রোডে সেন্ট্রাল উইমেন্স ইউনিভার্সিটিতে এক আলোচনা সভায় এ কথা বলেন ইউনিভার্সিটির উপাচার্য পারভীন হাসান। আন্তর্জাতিক নারী নির্যাতন প্রতিরোধ দিবস উপলক্ষে এ সভার আয়োজন করে ইউনিভার্সিটির সোসিওলজি অ্যান্ড জেন্ডার স্টাডিজ বিভাগের ‘সোসিওলজি অ্যান্ড জেন্ডার ক্লাব’। অনুষ্ঠানটি পরিচালনা করেন এই বিভাগের শিক্ষক সিরাজুম মুনিরা। পারভীন হাসান বলেন, সমাজে নারীকে যৌন হয়রানির পাশাপাশি শারীরিক ও মানসিকভাবেও নির্যাতন করা হয়। এতে বাধ্য হয়ে অনেক নারী আত্মহত্যার পথ বেছে নেন। এই নির্যাতনের বিরুদ্ধে প্রথমে পরিবার থেকে প্রতিরোধ গড়ে তুলতে হবে। জাতীয় পর্যায়ে পাঠ্যসূচিতে বিষয়টি অন্তর্ভুক্ত করতে হবে। সমাজে নারীকে একজন মানুষ হিসেবে ভাবতে হবে।
ইউনিভার্সিটির ইংলিশ অ্যান্ড মডার্ন ল্যাঙ্গুয়েজ বিভাগের শিক্ষক জায়েদ উল এহসান বলেন, এই নির্যাতন বন্ধ করতে হলে নারীকে নিজের ওপর আত্মবিশ্বাস রাখতে হবে। পরে সবাইকে নিয়ে একসঙ্গে নারী নির্যাতনের বিরুদ্ধে রুখে দাঁড়াতে হবে। অনুষ্ঠানে সেন্ট্রাল উইমেন্স ইউনিভার্সিটির সোসিওলজি অ্যান্ড জেন্ডার স্টাডিজ বিভাগের চেয়ারপারসন অধ্যাপক মালেকা বেগম, কম্পিউটার সায়েন্স অ্যান্ড ইঞ্জিনিয়ারিং বিভাগের চেয়ারপারসন শের শারমীন আজমেরী খান প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

প্রতি মুহুর্তের সর্বশেষ খবর পেতে এখানে ক্লিক করে আমাদের ফেইসবুক পেইজে লাইক দিন

(লেখাটি পড়া হয়েছে 44 বার)


Print
এই পাতার আরও সংবাদ